সঊদী আরবে এক ধরনের অফিস রয়েছে, যেখানে ২০ হাযার টাকা মূল্যের মোবাইলের স্ক্র্যাচ কার্ড ৬ মাসের কিস্তিতে ৩০ হাযার টাকা পরিশোধ করার শর্তে বিক্রি করা হয়। অতঃপর ক্রেতা তা অন্যের নিকটে বিক্রি করে স্ক্র্যাচ কার্ডের টাকা ব্যবহার করে। শরী‘আতে এরূপ ব্যবসার বিধান কি?


উক্ত ব্যবসা হালাল নয়। কারণ উক্ত ব্যবসা রিবা আন-নাসিআহ বা বাকীতে ঋণের সূদ-এর উপর প্রতিষ্ঠিত। কেননা প্রতিষ্ঠানটি স্ক্র্যাচ কার্ড কিস্তিতে বিক্রয়ের মাধ্যমে মূলতঃ বাকীতে ঋণ প্রদানের উপর অতিরিক্ত অর্থ নিচ্ছে। এক্ষেত্রে প্রতিষ্ঠানটি কেবল অর্থলগ্নিকারী, পণ্যের বিক্রেতা নয়। ঋণগ্রহীতার সাথে ঋণদাতার সম্পর্ক এখানে ঋণের, পণ্যের নয়। আর স্ক্র্যাচ কার্ড কোন ভোগ্যপণ্য নয়। বরং অর্থ লগ্নির একটা প্রতীকী বস্ত্ত মাত্র। এতে অর্থের বিনিময়ে অধিক অর্থ উপার্জন করা হয়। যা স্পষ্ট সূদ। অতএব এরূপ ব্যবসা করা এবং এরূপ প্রতিষ্ঠান থেকে ঋণ লেনদেন করা উভয়টিই হারাম।

This entry was posted in বাকী‌তে সুদের ব্যবসা করা যা‌বে কি?. Bookmark the permalink.