অনেক আলেম বলেন. ফিৎরা খেজুর বা যব দিয়ে দিতে হবে। এছাড়া অন্য কিছু দিয়ে দেওয়া যাবে না। ফলে অনেক মানুষ টাকা দিয়ে এগুলি কিনে ফিৎরা দেয়। এটা শরী‘আতসম্মত হবে কি?


উক্ত বক্তব্য সঠিক নয়। কেননা খেজুর ও যব ছাড়াও অন্যান্য হালাল খাদ্যদ্রব্য অথবা মানুষের প্রধান খাদ্য দ্বারা ফিৎরা আদায়ের কথা হাদীছে স্পষ্টভাবে এসেছে। রাসূল (ছাঃ) বলেন, أَدُّوْا صَاعًا مِنْ طَعَامٍ فِي الْفِطْرِ ‘তোমরা ছাদাক্বাতুল ফিৎর আদায় কর এক ছা‘ খাদ্যশস্য দ্বারা’ (ছহীহুল জামে‘ হা/২৪২; সিলসিলা ছহীহাহ হা/১১৭৯)। আবু সাঈদ খুদরী (রাঃ) বলেন, ‘আমরা এক ছা‘ খাদ্যশস্য, এক ছা‘ যব, এক ছা‘ খেজুর, এক ছা‘ পনির বা এক ছা‘ কিশমিশ থেকে যাকাতুল ফিৎর বের করতাম’ (বুখারী হা/১৫০৬; মুসলিম হা/৯৮৫; মিশকাত হা/১৮১৬)।

অত্র হাদীছে যাকাতুল ফিৎর প্রদানের ব্যাপারে বিভিন্ন খাদ্যশস্যের নাম সহ সাধারণভাবে ‘ত্ব‘আম’ বা খাদ্যের কথা এসেছে, যা মানুষ তাদের দৈনন্দিন জীবনে প্রধান খাদ্য হিসাবে গ্রহণ করে থাকে। অতএব প্রত্যেক দেশের প্রধান খাদ্য দ্বারা ফিৎরা প্রদান করাই শরী‘আত সম্মত।

This entry was posted in ফিৎরা আদায় করা কি ধনী-গরীব সকলের উপরেই ফরয?, ফিৎরা খেজুর বা যব দিয়েই কি দিতে হবে?, ফিৎরা চাউ‌ল দি‌য়ে দেয়া হয় কো‌নো?, ফিৎরা টাকা দি‌য়ে দেওয়া যা‌বে কি?. Bookmark the permalink.