মিথ্যা কসম, কুরআন অবমাননা প্রভৃতি কারণে অনেক মানুষের ব্যাপারে শোনা যায় যে তাদের আকৃতি কুকুর, বানর ইত্যাদিতে পরিবর্তিত হয়ে গেছে। এসব ঘটনার কোন সত্যতা আছে কি?


আল্লাহ এরূপ করতে পারেন, যেভাবে তিনি প্রতারণার আশ্রয় গ্রহণকারী শনিবারওয়ালাদেরকে শাস্তিস্বরূপ নিকৃষ্ট বানরে পরিণত করেছিলেন। আল্লাহ বলেন, ‘আর তোমরা তাদের বিষয়ে সম্যক অবগত আছো, যারা তোমাদের মধ্যে শনিবারের ব্যাপারে বাড়াবাড়ি করেছিল। তখন আমরা তাদের বলেছিলাম যে, তোমরা নিকৃষ্ট বানর হয়ে যাও (বাক্বারাহ /৬৫রাফ /১৬৬)। রাসূল (ছাঃ) বলেছেন, ‘অবশ্যই এই উম্মতের মধ্যে ভূমিধ্বস, আসমান থেকে নিক্ষিপ্ত গযব ও দৈহিক রূপান্তরগত শাস্তির প্রাদুর্ভাব দেখা দিবে। এসব তখনই ঘটবে যখন তারা মদ্যপান শুরু করবে, গায়িকা রাখবে ও বাদ্যযন্ত্র বাজাবে। অন্য বর্ণনায় এসেছে, যখন ঘৃণ্য পাপাচার সমূহের প্রকাশ ঘটবে (তিরমিযী হা/২২১২, ২১৮৫; ছহীহাহ হা/৯৮৭, ২২০৩)

তবে ইন্টারনেটে ছড়িয়ে থাকা এরূপ নানা ভিডিও চিত্রের সত্যতা সম্পর্কে পুরোপুরি নিশ্চিত না হয়ে বিশ্বাস করা যাবে না। কারণ প্রযুক্তির উৎকর্ষতার এই যুগে এসব ভিডিও কৃত্রিমভাবে তৈরী করা খুবই সহজ।

Advertisements
This entry was posted in কুরআন অবমাননার কারণে মানুষের আকৃতি কুকুর পরিবর্তিত হয়ে যাওয়া ঘটনা সত্য কি?. Bookmark the permalink.