সংসারবিমুখ নববধু রাজধানীতে গুরুত্বপূর্ণ সরকারী চাকুরীতে ব্যস্ত থাকে এবং স্বামী দেশের বাড়িতে রান্না-বান্না সহ যাবতীয় কাজ আঞ্জাম দেয়। এক্ষণে স্বামীর জন্য করণীয় কি?


নারীর মৌলিক দায়িত্ব স্বামীর ঘর সামলানো এবং   সন্তান প্রতিপালন। আর পুরুষের দায়িত্ব পরিবারের ভরণ-পোষণ। (ক্বিয়ামতের দিন) স্বামী পরিবার সম্পর্কে তার দায়িত্বের ব্যাপারে এবং স্ত্রী তার স্বামীর সংসার ও সন্তান-সন্তুতি সম্পর্কিত দায়িত্বের ব্যাপারে জিজ্ঞাসিত হবে (বুখারী, মুসলিম, মিশকাত হা/৩৬৮৫)। রাসূলুল্লাহ (ছাঃ) বলেন, ‘নারী হ’ল গোপন বস্ত্ত। যখন সে বের হয়, শয়তান তার পিছু নেয়’ (তিরমিযী হা/১১৭৩; মিশকাত হা/৩১০৯)। তাই নিরূপায় না হ’লে গৃহাভ্যন্তরে অবস্থান করাই মহিলাদের কর্তব্য (আহযাব ৩৩/৩৩)। স্বামীর অনুমতিক্রমে স্ত্রী পর্দা সহ শরী‘আতের বিধানসমূহ মেনে যদি চাকুরীরত থাকেন এবং যদি চাকুরীস্থলে ধর্মীয় পরিবেশ বজায় থাকে, তবে চাকুরী করতে পারেন। এক্ষণে প্রশ্নের আলোকে উভয়ের জন্য পরামর্শ হ’ল, শরী‘আতের বিধান মেনে দাম্পত্য জীবন যাপন করুন।

Advertisements
This entry was posted in সংসারবিমুখ নববধূর স্বামীর জন্য করণীয় কি? and tagged . Bookmark the permalink.