মৃত ব্যক্তিকে কবরস্থ করার পর মানুষ ৪০ কদম পথ অতিক্রম করতেই মৃতের হিসাব শুরু হয়। বহুল প্রচলিত এই কথাটির কোন সত্যতা আছে কি?


এরূপ কোন বর্ণনা পাওয়া যায় না। বরং মৃত্যুর পর থেকেই হিসাবের কার্যক্রম শুরু হয়ে যায় (বুখারী হা/১৩৭৯, মুসলিম হা/২৮৬৬; মিশকাত হা/১২৭; আহমাদ, আবুদাঊদ, মিশকাত হা/১৬৩০)। সেকারণ দাফনের ব্যস্ততা শেষ হওয়ার পর রাসূল (ছাঃ) বলতেন, ‘তোমরা তোমাদের ভাইয়ের জন্য ক্ষমা প্রার্থনা কর এবং তার দৃঢ় থাকার জন্য আল্লাহর নিকট দো‘আ কর। কেননা এখন সে জিজ্ঞাসিত হচ্ছে’ (আবুদাঊদ হা/৩২২১; মিশকাত হা/১৩৩; ছহীহুল জামে‘ হা/৯৪৫)। এখানে ‘দাফনের পর’ বলা হয়েছে অধিকাংশ ক্ষেত্রে মৃত্যু কেন্দ্রিক কার্যক্রমের হিসাবে। নইলে এটি (কবরস্থ হৌক বা না হৌক) সকল মৃতের ক্ষেত্রে প্রযোজ্য (মির‘আত হা/১৩০-এর ব্যাখ্যা)

Advertisements
This entry was posted in কবর দেওয়ার পর ৪০ কদম অতিক্রম করার পর হিসাব শুরু হয় কি? and tagged , . Bookmark the permalink.