বিদায়কালে কাউকে ‘তুমি তোমার প্রার্থনায় আমাকে শরীক করতে ভুলে যেয়ো না’ বলা যাবে কি?


উক্ত মর্মে বর্ণিত হাদীছটি যঈফ (আহমাদ হা/১৯৫; তিরমিযী হা/৬৫৬২; মিশকাত হা/২২৪৮; যঈফুল জামেহা/৬২৭৮)। তবে সাধারণভাবে মুমিনগণ একে অপরের নিকটে দো‘আ চাইবে। যেমন ইউসুফ (আঃ)-এর ভাইয়েরা পিতা ইয়াকূব (আঃ)-এর নিকটে ক্ষমা চেয়ে বলেছিলেন, ‘আপনি আমাদের পাপের জন্য ক্ষমা প্রার্থনা করুন (ইউসুফ ১২/৯৭)। ওমর (রাঃ) রাসূল (ছাঃ)-এর নির্দেশনা অনুযায়ী উয়াইস ক্বারনীর নিকটে দো‘আ চেয়ে বলেছিলেন, আমার জন্য ক্ষমা প্রার্থনা করুন (মুসলিম হা/২৫৪২; মিশকাত হা/৬২৫৭)। রাসূল (ছাঃ) বলেন, কোন মুসলিম তার ভাইয়ের জন্য তার অনুপস্থিতিতে দো‘আ করলে তা অবশ্যই কবুল হয়। তার মাথার নিকটে একজন ফিরিশতা নিযুক্ত থাকে। যখনই সে তার ভাইয়ের জন্য কল্যাণের দো‘আ করে, তখনই ঐ ফিরিশতা বলে, ‘আমীন’! তোমার জন্যও অনুরূপ’ (মুসলিম হা/২৭৩৩; মিশকাত হা/২২২৮)

Advertisements
This entry was posted in তুমি তোমার প্রার্থনায় আমাকে শরীক করতে ভুলে যেয়ো না’ বলা যাবে কি? and tagged , . Bookmark the permalink.