মসজিদের ইমাম ছাহেব স্পষ্ট শিরকী কর্মে লিপ্ত থাকায় আমরা ৭-৮ জন ভাই একটি দোকানের ভিতর জুম‘আ আদায় করি। এভাবে জুম‘আ আদায় করা যাবে কি? জুম‘আর জন্য মসজিদ শর্ত কি?


ইমাম স্পষ্ট শিরকে জড়িত থাকলে কিংবা মসজিদ শিরক-বিদ‘আত যুক্ত হ’লে অন্য মসজিদে গিয়ে জুম‘আর ছালাত আদায় করবে। অধিক জ্ঞান অর্জন বা বড় জামা‘আতে অংশগ্রহণ করার জন্য অন্য মসজিদে যেতে কোন বাধা নেই (উছায়মীন, মাজমূ‘ ফাতাওয়া ১৪/২৪১-২৪২)। কিন্তু আশেপাশে জামে মসজিদ থাকা অবস্থায় বিচ্ছিন্নভাবে অল্প সংখ্যক ব্যক্তি দোকানে বা কোন স্থানে জুম‘আর ছালাত আদায় করা জায়েয নয় (ইবনু বায, ফৎওয়া নূরুন ‘আলাদ দারব ১৩/১৮৭)। কেননা তা জুম‘আর মূল উদ্দেশ্য ব্যাহত করে। জমহূর ওলামায়ে কেরামের মতে জুম‘আর ছালাতের জন্য মসজিদ শর্ত নয়। যেমনটি ইবনু ওমর (রাঃ) থেকে বর্ণিত আছারে এসেছে, তিনি বাহরাইনবাসীদের উদ্দেশ্য করে বলেন, তোমরা জুম‘আর ছালাত আদায় কর, যেখানেই থাক না কেন (মুছান্নাফ ইবনু আবী শায়বা হা/৫০৬৮; সনদ ছহীহ, ইরওয়া হা/৫৯৯-এর আলোচনা, আল-ফিকহু আলাল মাযাহিবিল আরবা‘আহ ১/৩৫১)। তবে তার জন্য যৌক্তিক কারণ থাকতে হবে। তাছাড়া এভাবে পৃথক জুম‘আর ছালাত আদায়ে সমাজে নতুন ফিৎনা সৃষ্টি  হবে, যা মোটেও কাম্য নয়।

রাসূল (ছাঃ) বলেন, ‘যে ব্যক্তি আযান শুনতে পেয়েও বিনা ওযরে মসজিদে যায় না তার ছালাত সিদ্ধ হবে না’। রাবী আব্দুল্লাহ ইবনু আববাস (রাঃ) বলেন, ‘ওযর’ হচ্ছে ভয় ও অসুস্থতা (ইবনু মাজাহ হা/৬৫২; মিশকাত হা/১০৭৭; ছহীহ আত-তারগীব হা/৪২৬)

This entry was posted in ইমাম শিরক-বিদ‘আত করলে অন্য জায়গায় জুম‘আর ছালাত আদায় করা যাবে কি? and tagged , , , , . Bookmark the permalink.