আমাদের এলাকার মসজিদটি ৩৫ বছর পূর্বে নির্মিত। এখন জানা যাচ্ছে যে তার নীচে একটি কবর ছিল। কিন্তু কেউ জানে না সেটা কোন দিকে। উক্ত মসজিদে ছালাত আদায় করা যাবে কি?


কবর থাকার বিষয়টি নিশ্চিত না হওয়া পর্যন্ত উক্ত মসজিদে ছালাত আদায় করা যাবে। এক্ষেত্রে প্রথমতঃ দু’জন ন্যায়নিষ্ঠ সাক্ষীর সাক্ষ্যের ভিত্তিতে নিশ্চিতভাবে জানতে হবে যে কবরটি কতদিন পূর্বের এবং কোন স্থানে অবস্থিত। যদি বহু পুরাতন হয় ও হাড়-হাড্ডি না থাকার সম্ভাবনা থাকে, উক্ত মসজিদে ছালাত আদায় করা যাবে (ফিক্বহুস সুন্নাহ ১/৪৭২ পৃঃ; তালখীছু আহকামিল জানায়েয, পৃঃ ৯১) আর যদি কবরে হাড়হাড্ডির অস্তিত্ব থাকার বিষয়টি নিশ্চিত হওয়া যায় তাহ’লে করণীয় হ’ল- কবর পূর্বের হ’লে মসজিদ সরাতে হবে। আর মসজিদ পূর্বের হ’লে কবর সরাতে হবে (মাজমূ‘ ফাতাওয়া ২২/১৯৪-৯৫ পৃঃ; তাহযীরুস সাজিদ ৪৫ পৃঃ)। এক্ষেত্রে সহজ সমাধান হ’ল, কবর থেকে হাড়-হাড্ডি তুলে অন্য গোরস্থানে দাফন করা (বুখারী হা/১৩৫২, ফিক্বহুস সুন্নাহ ১/৩০০-০২)

This entry was posted in মসজিদের নিচে কবর থাকলে সেখানে ছালাত আদায় করা যাবে কি? and tagged , , . Bookmark the permalink.