Tag Archives: গোনাহগার

আমি প্রকাশ না করার ব্যাপারে ওয়াদাবদ্ধ থাকা সত্ত্বেও একজনের গোপন পাপ তার পিতা-মাতার নিকটে প্রকাশ করে দিয়েছি। আমার লক্ষ্য ছিল তার অভিভাবককে বলে তাকে সংশোধন করা। এক্ষণে ওয়াদা ভঙ্গের জন্য আমি গোনাহগার হব কি? এজন্য তার নিকটে ক্ষমা না নিলে ক্ষমা হবে কি?


এরূপ ওয়াদা ভঙ্গের কারণে গুনাহগার হবে না। আর এজন্য তার নিকট ক্ষমা চাইতেও হবে না (ইমাম শাফেঈ, আল-উম্ম, ৮/৬৩১)। কোন ব্যক্তিকে সংশোধনের উদ্দেশ্যে সমালোচনা বৈধ বা তার গোপন কথা এমন ব্যক্তিকে বলা যায়, যার মাধ্যমে সে সংশোধন হবে। রাসূল (ছাঃ) বলেন, … Continue reading

Posted in ওয়াদা ভঙ্গের জন্য আমি গোনাহগার হতে হবে কি? | Tagged ,

জোববা ও পায়জামা পরিহিত অবস্থায় তা টাখনুর নীচে নেমে গেলে গোনাহগার হ’তে হবে কি?


ইচ্ছাকৃতভাবে টাখনুর নীচে কাপড় ঝুলিয়ে পরলে গোনাহগার হ’তে হবে। হাদীছে পোশাক ঝুলিয়ে টাখনু বা গোড়ালীর নীচে পরতে নিষেধ করা হয়েছে। তা জুববা, পায়জামা বা লুঙ্গী হ’লেও বিধান একই থাকবে। রাসূল (ছাঃ) বলেন, ‘টাখনুর নীচে কাপড়ের যতটুকু যাবে, ততটুকু জাহান্নামে পুড়বে’ (বুখারী … Continue reading

Posted in জোববা ও পায়জামা পরিহিত অবস্থায় তা টাখনুর নীচে নামানো যাবে কি? | Tagged

আমার পিতা-মাতার মাঝে বৈবাহিক সম্পর্ক বিচ্ছিন্ন। পিতা আমাদের কোন খরচ বহন করেন না। আমি মায়ের সাথে থাকি। তার নির্দেশনা অনুযায়ী গত পাঁচবছর যাবৎ পিতার সাথে কোন সম্পর্ক রাখি না। এজন্য আমি গুনাহগার হব কি?


পিতার সাথে যথাসম্ভব সম্পর্ক রাখতে হবে এবং সদাচরণ করতে হবে। নইলে গুনাহগার হ’তে হবে। কেননা পিতা-মাতার হক সন্তানের উপর অপরিসীম, যা কখনো পূরণীয় নয়। তাঁরা সদাচরণ করুন বা না করুন, তাদের সেবা করা সন্তানের জন্য অবশ্য কর্তব্য। এমনকি তারা শিরক … Continue reading

Posted in পিতা-মাতা বিচ্ছিন্ন। এখন পিতার সাথে সম্পর্ক না রাখলে গুনাহগার হব কি? | Tagged , ,

গীবত শ্রবণকারী গীবতকারীর সমপরিমাণ গোনাহগার হয়। সভা-সমিতিতে এরূপ গীবত হ’লে সেক্ষেত্রে শ্রবণকারীর করণীয় কি?


গীবত শ্রবণকারীর গীবতকারীর সমপরিমাণ গুনাহ হবে কথাটি সঠিক নয়। তবে গীবত করা যেমন নিষেধ তেমনি তা শ্রবণ করাও নিষেধ (হুজুরাত ৪৯/১২)। আর গীবতকারীর প্রতিবাদ করে কোন ভাইয়ের সম্মান রক্ষা করলে আল্লাহ্ প্রতিবাদকারীর চেহারাকে কিয়ামত দিবসে জাহান্নামের আগুন থেকে রক্ষা করবেন … Continue reading

Posted in গীবত শ্রবণকারী গীবতকারীর সমপরিমাণ গোনাহগার হয় কি? | Tagged

বারবার তওবা করে বারবার গোনাহে লিপ্ত হলে তওবা কবুল হবে কি?


বারবার তওবা করেও যদি কেউ একই গুনাহে জড়িত হয় তাহলে মনে করতে হবে যে, তার তওবা শর্ত মাফিক হচ্ছে না। এরপরেও তওবার দরজা আল্লাহ খুলে রেখেছেন। বান্দা যতই গোনাহ করুক অনুতপ্ত হয়ে পুনরায় সেই পাপ করবে না বলে প্রতিজ্ঞাবদ্ধ হয়ে … Continue reading

Posted in বারবার তওবা করে বারবার গোনাহে লিপ্ত হলে তওবা কবুল হবে কি | Tagged | Leave a comment