Tag Archives: ব্যাংক

আমার পিতা সূদী ব্যাংকে চাকুরী করেন। মৃত্যুর পর তার রেখে যাওয়া সম্পদের অংশীদার হওয়া আমার জন্য জায়েয হবে কি?


সূদী ব্যাংকসহ যেকোন সূদী প্রতিষ্ঠানে চাকুরীর কারণে উপার্জিত সম্পদ কেবল উপার্জনকারীর জন্য হারাম। উপার্জনকারীর ওয়ারিছ হিসাবে বৈধ পন্থায় গ্রহণকারী এ জন্য দায়ী হবে না (উছায়মীন, তাফসীর সূরা বাক্বারাহ ৫৭ আয়াত ১/১৯৮)। অতএব পিতার মৃত্যুর পর ওয়ারিছরা তার উত্তরাধিকারী হবে। তবে কোন … Continue reading

Posted in ব্যাংকে চাকুরী করা বাবার সম্পদের অংশীদার হওয়া আমার জন্য জায়েয হবে কি? | Tagged ,

ব্যাংক বা এনজিও থেকে সূদভিত্তিক ঋণ নিয়ে ব্যবসা করলে উক্ত ব্যবসা হালাল হবে কি?


সূদের উপর টাকা নিয়ে ব্যবসা-বাণিজ্য করা জায়েয নয়। আল্লাহ তা‘আলা সূদখোরের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করেছেন (বাক্বারাহ ২/২৭৮-৭৯) এবং সূদগ্রহীতা ও সূদদাতা উভয়কে লা‘নত বা অভিসম্পাত করেছেন (আবুদাঊদ, ইবনু মাজাহ, মিশকাত হা/৩৭৫৩)। রাসূল (ছাঃ) বলেছেন, ‘সূদের দ্বারা সম্পদ যতই বৃদ্ধি পাক না কেন তার … Continue reading

Posted in ব্যাংক বা এনজিও থেকে ঋণ নিয়ে ব্যবসা করলে ব্যবসা হালাল হবে কি? | Tagged , ,

আমি একটি প্রাইভেট হাসপাতালে প্যাথলজিস্ট হিসাবে কাজ করতে চাই। কিন্তু সেটি একটি ব্যাংকের অর্থায়নে পরিচালিত হয়। এক্ষণে এখানে চাকুরী করা আমার জন্য জায়েয হবে কি?


জায়েয হবে। কেননা বৈধ বস্ত্ত উৎপাদনকারী তথা বৈধ লক্ষ্যে প্রতিষ্ঠিত যেকোন কোম্পানী বা প্রতিষ্ঠানে চাকুরী করা যাবে। যদিও তার মজুরী সূদযুক্ত অর্থ দিয়ে প্রদান করা হয়। এজন্য দায়ী হবে উক্ত সূদের গ্রহীতা প্রতিষ্ঠানের মালিক (উছায়মীন, লিকাউল বাবিল মাফতূহ ১৫/৫৯)। আল্লাহ বলেন, … Continue reading

Posted in ব্যাংকের অর্থায়নে পরিচালিত হাসপাতালে কাজ করা যাবে কি? | Tagged

বিভিন্ন ব্যাংকে বিভিন্ন মেয়াদী ডি.পি.এস একাউন্ট খোলার সুযোগ রয়েছে। এসব একাউন্ট খোলা যাবে কি? এখানে জমাকৃত টাকা নিছাব পরিমাণ হ’লে যাকাত দিতে হবে কি?


দেশের কোন ব্যাংকেরই কার্যক্রম শতভাগ সূদমুক্ত নয়। তাই ব্যাংকে ডি.পি.এস খোলা থেকে বিরত থাকা কর্তব্য। তবে যে কোন একাউন্টে হৌক বা অন্য কোথাও হৌক তাতে নিজস্ব মালিকানা সাব্যস্ত থাকলে এবং সেখানে নিছাব পরিমাণ অর্থ এক বছর সঞ্চিত থাকলে তা থেকে … Continue reading

Posted in ব্যাংকে ডি.পি.এস একাউন্ট খোলার সুযোগ রয়েছে কি? | Tagged

আমি পাঁচ লক্ষ টাকা ব্যাংকে ফিক্সড ডিপোজিট রেখে তা থেকে প্রাপ্ত লভ্যাংশ দিয়ে যাকাত দিয়েছি এবং বাকী অংশ দান করেছি। এক্ষণে আমার যাকাত কবুলযোগ্য হবে কি? না মূল টাকা থেকে যাকাত বের করতে হবে?


গৃহীত লভ্যাংশ সূদমুক্ত না হওয়ায় উক্ত যাকাত কবুলযোগ্য হবে না। বরং মূল অর্থ হ’তে যাকাত দিতে হবে। কারণ বর্তমানে প্রচলিত কোন ব্যাংকই পুরোপুরি সূদমুক্ত নয়। বরং সন্দেহযুক্ত। রাসূলুল্লাহ (ছাঃ) বলেন, হালাল স্পষ্ট ও হারাম স্পষ্ট। এর মধ্যবর্তী বিষয়সমূহ অস্পষ্ট, যা … Continue reading

Posted in ব্যাংকে রাখা টাকার যাকাত দিলে কবুল হবে কি? | Tagged ,

জনৈক মৃত ব্যক্তির পরিবার তার রেখে যাওয়া ইসলামী ব্যাংকে ফিক্সড ডিপোজিট থেকে প্রাপ্ত লভ্যাংশ দিয়ে অতিকষ্টে জীবনযাপন করে। তারা নিজেরাই যাকাত পাওয়ার হকদার। এক্ষণে তাদের ডিপোজিটকৃত মূল টাকা থেকে যাকাত বের করতে হবে কি?


প্রথমতঃ কোন ব্যাংকেই টাকা রেখে লভ্যাংশ ভোগ করা যাবে না। কারণ উক্ত লভ্যাংশ সূদের অন্তর্ভুক্ত। দ্বিতীয়তঃ জমাকৃত সম্পদ নিছাব পরিমাণ হ’লে যাকাত বের করা আবশ্যক। দরিদ্রতা এর জন্য বাঁধা নয়। অতএব আল্লাহর উপর পূর্ণ ভরসা রেখে উক্ত টাকা ব্যাংক থেকে … Continue reading

Posted in ব্যাংকে টাকা রেখে লভ্যাংশ ভোগ করা যাবে কি? | Tagged

সূদী ব্যাংক, ইসলামী ব্যাংক, সকল ব্যাংকই যদি সূদযুক্ত হয়, তাহলে টাকা রাখার ব্যাপারে আমাদের জন্য করণীয় কি?


সূদ কবীরা গুনাহের অন্তর্ভুক্ত। তাই এ থেকে যেকোন মূল্যে বেঁচে থাকতে হবে। আপনার জমাকৃত অর্থ দিয়ে শরী‘আত অনুমোদিত মুযারাবা ও মুশারাকা সিস্টেমে (মুযারাবা-একজনের অর্থে অপর জন ব্যবসা করবে। লভ্যাংশ চুক্তি অনুপাতে উভয়ের মধ্যে বণ্টিত হবে (আবুদাঊদ হা/৪৮৩৬; সনদ ছহীহ ) … Continue reading

Posted in ব্যাংকে টাকা রাখা যাবে কি? না রাখা গেলে আমরা কোথায় রাখবো? | Tagged | Leave a comment